মেনু নির্বাচন করুন

বশির পাগলা ও বৃহৎ মায়ের মাজার শরিফ

নেত্রকোণা জেলার  দুর্গাপুর উপজেলা থেকে কাইলাটী ইউনিয়নের ৫নং ওয়ার্ডের অনন্তপুর গ্রামে আসেন পাগল সাধক হযরত খাজা বশির উদ্দিন চিশতী। শোনা যায় যে এখানে আসার পর উনার কালো রঙ এর একটা জীবন্ত পাথর আসে। যা দিনে দিনে বড় হতে থাকে।  যারফলে মানুষ জন উনাকে বিশ্বাস করতে শুরু করে। এবং এই পাথরটি কে যত্ন করার পর আরো অনেক পাথর জন্ম লাভ করে। পরবর্তীতে এই পাথটির স্থানে বৃহৎ মা দরগয়া স্থাপন করেন হযরত খাজা বশির উদ্দিন চিশতী। দিনে দিনে অনেক দুর-দুরান্ত থাকে মানুষ জন আসতে শুরু করে এই পাথর গু্লো দেখার জন্য। পরবর্তী প্রতি বছর শীত কালে এই মাঝের বড় করে ওরছ মোবারক করা হয়। এখনো প্রতিবছর অনেক লোক জন জমায়েত হয় এই ওরছ-এ। জানা যায় যে, উনি  ইংরেজী ২০০০খ্রীঃ মৃত্যু বরন করেন।


Share with :

Facebook Twitter